Nakshatraloker Debatatma (নক্ষত্রলোকের দেবতাত্মা) by Narayan Sanyal । বাংলা বই - Get Bangla Books online- you like to read
আপনি কি পড়ার জন্য চেনা বা অচেনা বাংলা বই খুঁজছেন? বা বুঝে উঠতে পারছেন না যে কোন গল্প, উপন্যাস বা বই পড়বেন এবং সেটা কোথা থেকে কিনবেন। তাহলে এই ওয়েব সাইটি আপনাকে যথাযথ সাহায্য করবে সবচেয়ে ভালো বইগুলি পেতে। যাতে পড়ার পরে পস্তাতে না হয়। আসুন বাছাই করা বেষ্টসেলার বইগুলির থেকে বেছে নিন আপনার উপযোগী বইগুলো। দুনিয়ার বই প্রেমীদের জন্য রইলো অভিনন্দন।

সায়েন্স-ফিকশন
Nakshatraloker Debatatma (নক্ষত্রলোকের দেবতাত্মা) by Narayan Sanyal । বাংলা বই

Nakshatraloker Debatatma (নক্ষত্রলোকের দেবতাত্মা) by Narayan Sanyal । বাংলা বই

সায়েন্স-ফিকশন
বইটির সম্পর্কে সংক্ষিপ্ত বিবরণ:

নারায়ণ সান্যালের লেখা কল্পবিজ্ঞানের বই

Book Description

 
Nakshatraloker Debatatma (নক্ষত্রলোকের দেবতাত্মা)

 
সায়েন্স-ফিকশন:
পশ্চিম-গোলার্ধে নিউ ইয়র্ক নামে একটি মহতী নগরী আছে; তাহার অনতিদূরে প্রটেস্টান্ট ধর্মাবলম্বনকারীদের নির্মিত রিভার-সাইড চার্চে যদি উপস্থিত হও দেখিতে পাইবে মন্দিরগাত্রে ছয়শতজন মহামানবের মর্মরমূর্তি। সৌরজগতের পৃথিবী নামক এই তৃতীয় গ্রহে সভ্যতায় ঊষাযুগ হইতে যে সকল সংখ্যাতীত জ্ঞানী-গুণী পণ্ডিতনিচয় মানব-সভ্যতাকে ক্রমোন্নতির তুঙ্গে উপস্থাপিত করায় সচেষ্ট হইয়াছেন তাঁহাদের ভিতর সুনির্বাচিত মাত্র ছয়শতজন যুগাবতার। বুদ্ধ-পিথাগোরাস-গ্যালিলেওলেওনার্দো-নিউটন-আইনস্টাইনের সেই সংকীর্ণ সীমিত নির্বাচনে আমার এ-কাহিনীর নায়ক-নায়িকাকে তুমি খুঁজিয়া পাইবে না। সে দুর্ভাগ্যের হেতু দ্বিবিধ। প্রথমত ইতিহাস ঐ দম্পতির সন্ধান পায় নাই, নাম শোনে নাই; দ্বিতীয়ত আমার নায়ক-নায়িকা দুর্ভাগ্যবশত ‘মানব-মানবী’ নামে চিহ্নিত হইবার উপযুক্তও নহে। তাহা না হইলে উক্ত ছয়শতজন স্বনামধন্য যুগান্তকারী মানবকের পংক্তিতে উহারাও অমরত্ব লাভ করিত। , ইতিহাস যে উহাদের নাম শােনে নাই তাহার কারণটিও বড় বিচিত্র। বস্তুতপক্ষে উহাদের আদৌ কোন নাম ছিল না। নাম’ দিয়া রূপ’কে চিহ্নিত করিবার যুগও তখনও অনাগত। নাম নাই, কিন্তু নামহীন রূপের কাহিনী কেমন করিয়া শুনাইব? আসুন, কাহিনীর উপরোধে আমরাই উহাদের নামকরণ করিয়া লই। মনে করা যাউক—আমার নায়কের নাম ‘যূথচ্যুত’ এবং নায়িকার নাম ‘ত্বমসি'। পাঠক এক্ষণে একটি সঙ্গত প্রশ্ন করিতে পারেন : এরূপ সৃষ্টিছাড়া নামকরণ কেন করিলাম? তথাস্তু! সেই কৈফিয়ৎটাই সর্বাগ্রে পেশ করি উহাদের আবাস একটি প্রায়লম্ব পর্বতের গুহায়। পার্বত্য সানুদেশের পঞ্চাশ হস্ত পরিমিত নিম্নে একটি আদিম অরণ্যভূমি। পূর্ব হইতে পশ্চিমে সে অরণ্যভূমির দৈর্ঘ্য পরিমাপ করা যায় না—প্রাগৈতিহাসিক যুগের সে যোজনব্যাপী অরণ্যভূম যেন মহাকাশের সহিত প্রতিযােগিতায় দিগন্তে অবলুপ্ত। পরন্তু বিস্তারে সে বনভূমি অর্ধক্রোশেরও অনধিক সেই ভয়ঙ্করী অরণ্যভূমের অন্ধকার এতাবৎকাল অতিকায় সরীসৃপদলের পদসঞ্চারে ছিল রহস্যময়; সেই জুরাসিক-যুগের বক্ষপদ দানবকুল দীর্ঘদিন-পূর্বেই জীবন-সংগ্রামে চূড়ান্ত পরাজয় স্বীকার করিয়া জীব-ইতিহাসের মহানেপথ্যে চলিয়া গিয়াছে—রাখিয়া গিয়াছে ইতস্তত-বিক্ষিপ্ত কিছু অতিকায় জীবাশ্ম ঐ অর্ধক্রোশব্যাপী অরণ্যভূম ভেদ করিয়া যদি দক্ষিণাভিমুখে অগ্রসর হও তাহা হইলে উপনীত হইবে স্বর্ণবালুকাশোভিত এক নদীবেলায়। নামগোত্রহীনা সুবিস্তীর্ণ গৈরিকবসনা এক স্রোতস্বিনীর উপকূলে। উহাদের নিজেদেরই নাম নাই, নদীপর্বতের নাম উহারা কোথায় পাইবে? উহারা না জানুক, জনান্তিকে তোমাদের জানাইতে পারি—
 

Buy Bangla book online- Nakshatraloker Debatatma (নক্ষত্রলোকের দেবতাত্মা) - নারায়ন সান্যাল
 
Book details:
  • Language ‏ : ‎ Bengali
  • Country of Origin ‏ : ‎ India
  • Type of book : বাংলা সায়েন্স-ফিকশন

0 Reviews:

Post Your Review